করোনায় একদিনে ভারতে ৩ লাখ ৩২ হাজার আক্রান্ত

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ে বিধ্বস্ত গোটা ভারত। আক্রান্ত ও মৃত্যুতে রোজ নতুন নতুন রেকর্ড গড়ছে।দক্ষিণ এশিয়ার দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় ৩ লাখ ৩২ হাজার মানুষের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। যা এ যাবৎকালে দৈনিক সর্বোচ্চ রোগী শনাক্তের রেকর্ড।শুক্রবার সকালে ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এই তথ্য জানিয়েছেন দেশটির নির্ভরযোগ্য গণমাধ্যম এনডিটিভি ও টাইমস অব ইন্ডিয়া।

আরও পড়ুন=যেসব মানুষের করোনা ভাইরাস পরীক্ষার এবং টিকা নেয়ার ডিজিটাল সনদ আছে তাদের জন্য আগামী মাস থেকে খুলে দেয়া হচ্ছে সিঙ্গাপুরের দরজা। গত ০৫ এপ্রিল, ২০২১ (সোমবার) দেশটির বেসামরিক বিমান চলাচল নিয়ন্ত্রণ কতৃপক্ষ এ ঘোষণা দিয়েছে।

এর মধ্য দিয়ে এমন উদ্যোগ নেয়া প্রথম দেশ হতে যাচ্ছে সিঙ্গাপুর। এ খবর দিয়েছে অনলাইন এশিয়া ওয়ান। এতে আরো বলা হয়, ইন্টারন্যাশনাল এয়ার ট্রান্সপোর্ট এসোসিয়েশন (আইএটিএ) ট্রাভেল পাস আছে এমন ব্যক্তিদের গ্রহণ করবে সিঙ্গাপুর।

এর আওতায় স্বীকৃত ল্যাবরেটরি থেকে দেয়া ডাটা স্মার্টফোনের মাধ্যমে প্রদর্শন করে সিঙ্গাপুর থেকে বাইরে যাওয়া যাবে। একই সঙ্গে সিঙ্গাপুরে প্রবেশ করা যাবে। বিষয়টি এরই মধ্যে সফলতার সঙ্গে পরীক্ষা করেছে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্স। এমিরেটস, কাতার এয়ারওয়েজ এবং মালয়েশিয়া এয়ারলাইন্সসহ কমপক্ষে ২০টি বিমান সংস্থা এই পদ্ধতি পরীক্ষা করছে।

এক বিবৃতিতে আইএটিএ মহাপরিচালক উইলি ওয়ালশ বলেছেন, আইএটিএ’র সঙ্গে সিঙ্গাপুর সরকারের অংশীদারিত্ব অন্যদের জন্য অনুকরণীয় মডেল হতে পারে। সিঙ্গাপুর হলো এশিয়ার ব্যবসার প্রাণকেন্দ্র। এ বছরে সেখানে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন খুব কম সংখ্যক মানুষ। এই দেশটি করোনা মহামারিকালে ডিজিটাল সনদ বিষয়ক প্রযুক্তি উদ্ভাবন এবং তার ব্যবহার নিয়ে পরীক্ষায় নেতৃত্ব দিচ্ছে। এর মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিক ইভেন্টগুলো শুরু করতে চায় তারা। তারা আশা করছে অন্য দেশগুলোও এই ডিজিটাল পাস অনুমোদন করে আন্তর্জাতিক যোগাযোগ স্থাপন করবে