কোটিপতি বনে যাওয়া সেই ছাত্রলীগনেতা গ্রেপ্তার

গাজীপুরের টঙ্গীতে বাসের টিকেট বিক্রেতা থেকে মাদক ব্যবসা করে কোটিপতি বনে যাওয়া আলোচিত ছাত্রলীগ নেতা মো. রেজাউল করিমকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে টঙ্গীর নোয়াগাঁও এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রেজাউল করিম গাজীপুরের টঙ্গীর হিমারদিঘী নোয়াগাঁও এলাকার হোসেন আলীর ছেলে।

তিনি টঙ্গী কলেজশাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এবং ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহসম্পাদকও। টঙ্গী পুর্ব থানার ওসি তদন্ত মো. দেলোয়ার হোসেন রেজাউলকে গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। পুলিশ জানায়, রেজাউলের বিরুদ্ধে জিএমপির টঙ্গী পশ্চিম থানায় চাঁদাবাজির মামলা রয়েছে।

একইদিন নবিন হোসেন নামে একজন মাদক কারবারিকে আটক করে পুলিশ। তার কাছ থেকে ৭৭০ গ্রাম গাঁজা এবং ৫০০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে নবিন পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে উদ্ধারকৃত ৫০০ ইয়াবা বিক্রির উদ্দেশে রেজাউল করিম তাকে সরবরাহ করেছে। সর্বশেষ গত ১ এপ্রিল রেজাউল স্থানীয় ব্যবসায়ী সাজ্জাদুল ইসলাম মনিরের কাছে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন।

এ ঘটনায় ব্যবসায়ীর স্ত্রী শিল্পী আক্তার বাদী হয়ে টঙ্গী পশ্চিম থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। টঙ্গী পুর্ব থানার ওসি (তদন্ত) মো. দেলোয়ার হোসেন বলেন, দত্তপাড়ায় অভিযান চালিয়ে রেজাউলকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য যে, সম্প্রতি টঙ্গীর মরকুন এলাকার মাদক ব্যবসায়ী সাইদা বেগমের সঙ্গে রেজাউলের একটি ফোনালাপ প্রকাশ পাওয়ায় এলাকায় ব্যাপক আলোচনা তৈরি হয়। পরে দেশের শীর্ষস্থানীয় বেশ কয়েকটি সংবাদপত্র ফলাও করে এই ছাত্রলীগ নেতাকে নিয়ে সংবাদ প্রকাশ করে।