মারুফকে ছাড়া কাউকে বিয়ে করবো না বলে অনশনে কলেজছাত্রী

ভালবাসার অন্যতম প্রধান স্তম্ভ হল দায়বদ্ধতা। যে প্রেমের মধ্যে দায়বদ্ধতা থাকে না, সেইটা প্রেম নয়। নিছক সাময়িক সম্পর্ক। তবে মুদ্রার উল্টা পিঠও আছে। নতুন খবর হচ্ছে, সিরাজগঞ্জের কাজিপুরে বিয়ের দাবিতে মারুফ হাসান নামের এক যুবকের বাড়িতে অ’নশ’ন করছেন কলেজছাত্রী। মারুফ হাসান উপজেলার কাজিপুর সদর ইউনিয়নের প্রজারপাড়া বর্তমান সিংড়াবাড়ি গ্রামের শিক্ষক লুৎফর রহমানের ছেলে।

গতকাল শুক্রবার সকাল থেকে ওই যুবকের বাড়িতে অবস্থান নিয়েছে কলেজছাত্রী। সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘ পাঁচ বছর ধরে সিংড়াবাড়ি গ্রামের মারুফ হাসান নামের ওই যুবকের সঙ্গে কলেজছাত্রীর প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল। গত ১২ এপ্রিল (সোমবার) গভীর রাতে ওই প্রেমিকার বাড়িতে অনৈতিক কাজের জন্য যান ওই যুবক।

বিষয়টি বুঝতে পেরে স্থানীয়রা তাকে আটক করে তার বাবা লুৎফর রহমানকে জানান। পরে তার বাবা ঘটনাস্থলে গিয়ে ছেলের সঙ্গে ওই মেয়ের বিয়ে সম্পন্ন করার প্রতিশ্রুতি দেন এবং ছেলেকে ঘটনাস্থল থেকে ছাড়িয়ে নেন।

ছেলে পক্ষ এ নিয়ে টালবাহানা করলে গত শুক্রবার (২৩ এপ্রিল) সকালে প্রে’মিকের বাড়িতে ওই মেয়ে বিয়ের দাবিতে অ’নশন শুরু করে। অন’শনকা’রী ওই ছাত্রী বলেন, ‘পাঁচ বছর হলো আমাদের প্রেম।

সে আমাকে বিয়ের আশ্বাসে আমার সঙ্গে শা’রী’রি’ক সম্পর্ক করে। এখন বলছে বিয়ে করবে না। বিয়ে না করা পর্যন্ত আমার এই অ’নশন চলতেই থাকবে। তাকে ছাড়া কাউকে বিয়ে করবো না। ‘অভিযুক্ত ওই যুবকের বাবা জানান, ‘বিষয়টি আমি জানি। কিন্তু ছেলে মানছে না।’ কাজিপুর থা’নার ওসি পিএন সরকার জানান, মেয়ের লোকজন থা’নায় এসেছে। মা’ম’লা হলে তদ’ন্ত করে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।